Breaking News

প্রে’ম, সন্তানের জন্ম, রেজিস্ট্রি,বিহীন বিয়ে; অতঃপর স্ত্রী-স,ন্তানের মা’টিচা’পা লা,শ!!

বরগুনার পাথরঘাটায় স্ত্রী ও ৯ মাসের ক;ন্যাশিশুকে হ;;ত্যা;র অ;ভিযো;গ উঠেছে স্বা;মীর বিরু;দ্ধে। এ ঘটনায় ৩ জনকে আ;টক করেছে পুলিশ। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার পাথরঘাটা পৌর শহরের পশ্চিমপাশে পূর্ব হাতেমপুর গ্রামে।

 

প্রেমের সম্পর্ক থেকে দৈ;হিক মি;লন, এরপর সন্তান জন্ম;দানের পর আদা;লতে মাম;লা;র প্রে;ক্ষিতে বিয়ে সম্পন্ন হয় প্রেমিক-প্রেমিকার। তারপর এ ঘটনা ঘটল। অভি;যু;ক্ত স্বামী মো. শাহিন (২২) একজন জেলে। লা;শ সুরতহা;লের পর ময়না;তদ;ন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে।

 

পাথরঘাট থানা ও গ্রামবাসীদের সূত্রে জানা গেছে, গত বুধবার (১ জুলাই) থেকে নিখোঁ;জ সুমাইয়া (১৮) ও তার ৯ মাসের শিশু কন্যা সামিরা আক্তার জুঁইকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না মর্মে থানায় অ;ভিযো;গ করা হয়। এরপর পুলি;শ ত;ল্লা;শি শুরু করে।

 

আজ শনিবার (৩ জুলাই) সকালে পুলিশ আ;সা;মির বাড়ির পাশে একটি নির্জ;ন স্থা;নে মা;টি চা;পা দেয়া অ;বস্থায় নিহ;ত স্ত্রী ও কন্যা সন্তা;নকে উ;দ্ধার করে। ধারণা করা হচ্ছে, গত বুধবার তাদের হ;;ত্যা করে মা;টি চা;পা দেয়া হয়েছে।

 

ঘটনার বিবরণে জানা গেছে, একই গ্রমের অধিবাসী মো. শাহিন ও সুমাইয়ার মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক ছিল। তাদের দৈ;হিক সর্ম্প;কে সুমাইয়া গ;র্ভবতী হন। এরপর স্বজন ও গ্রামবাসীদের চা;পে থা;নায় ধ;;র্ষ;;ণ মা;ম;লা রু;জু হয়। পাথরঘাটা থানায় ২০২০ সালের ১৪ জুলাই নারী ও শিশু দ;মন আ;ইনে মা;মলা হলে শহিন গ্রে;প্তার হয়ে ৩ মাস হা;জতবা;স করেন। পুলিশ সন্তানের পিতৃপ;রিচয় উদঘা;টনের লক্ষ্যে ডিএনএ পরীক্ষার উদ্যোগ নিলে আ;সামি শাহিন তার স্ত্রী ও স্বজনদের বুঝিয়ে তারা বিবাহ মেনে নিয়েছে মর্মে ডিএনএ পরীক্ষা না করার জন্য পুলিশকে লি;খিতভাবে জানান। ইতোমধ্যে সুমাইয়ার গর্ভে শাহিনের ঔরশ;জাত একটি ক;ন্যা সন্তান জন্ম;গ্রহণ করে ৯ মাস আগে। বরগুনা নারী-শিশু দমন ট্রা;ইবু;নালে ওই বিচার চলমান অবস্থায় স্ত্রী ও নয় মাসের স;ন্তান হ;;ত্যা;র ঘট;না ঘ;টল।

 

পূর্ব হাতেমপুর গ্রামের প্রতিবেশী ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বহিনীর সদস্য আবদুর রাজ্জাক বাদশা জানান, স্ত্রীর আবেদনে আদালত থেকে জামিনে ফিরে আসেন স্বামী। ওই কন্যাসন্তান জন্ম গ্রহণের পর থেকেই স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে প্রতিনিয়ত ঝ;গড়া-ঝাঁ;টি লে;গেই থাকতো।

 

নিহ;ত সুমাইয়ার বাবা মো. রিপন হাওলাদার জানান, শাহিনের পরামর্শে গত সেপ্টেম্বর মাসে তার মেয়ের আনুষ্ঠানিকভাবে বিয়ে করানো হয়। কিন্তু প্রাপ্তবয়স্ক না হওয়ায় কোনো কাবিন;নামা রে;জিস্ট্রি হয়নি।

 

পাথরঘাটা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আবুল বাশার জানান, লা;;শের সুর;তহাল প্রতিবেদন করা হয়েছে ও ময়;নাতদ;ন্তের জন্য বরগুনা ম;র্গে প্রেরণ করা হয়েছে। অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তোফালে হোসেন সরকার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। তিনি বলেন, মাটি খুঁ;ড়ে স্ত্রী-সন্তা;নের হাত-পা বাঁধা অ;বস্থায় লা;;শ উ;দ্ধার করা হয়।

 

ঘটনার সাথে জ;ড়িত স;ন্দে;হে আসা;মি শাহিনের মা জাহানারা বেগম, মামাতো ভাই মো. ইমাম ও নানীকে গ্রে;প্তার করা হয়ে;ছে। মাম;লা রুজু;র প্রচে;ষ্টা চলছে।

 

 

 

কিন্তু মাত্র ৬ দিনের মা’থায় অঘটনের শুরু। হাসপাতা’লে সিজারের ৪ দিনের মা’থায় আসেন বাড়িতে। দুই দিন পর প্রচণ্ড কাঁপুনি দিয়ে জ্বর আসে শিপলার। এতে গুরুত্বর অ’সুস্থ হয়ে পড়েন তিনি। চিকিৎসকদের পরাম’র্শে নিকটস্থ আরবার হেলথ সেন্টারে শিপলার ক’রোনা পরীক্ষা করা হয়। টেস্টের রেজাল্ট আসে পজিটিভ। এরপর ধীরে ধীরে আরেও অ’সুস্থ হয়ে পড়েন শিপলা। চিকিৎসকের পরাম’র্শে রাজশাহী সিটি কপোরেশানের ২৬নং ওয়ার্ড থেকে অক্সিজেন সাপোর্ট নেন।

 

পরে আবারেও অক্সিজেনের দরকার হলে নেন স্থানীয় চন্দ্রীমা থা’না থেকে। এরই মধ্য বৃহস্পতিবার (১ জুলাই) রাতে মা’রাত্মক শ্বা’সক’ষ্টে পড়েন শিপলা। রাতভর বৃষ্টি সাথে বাইরে লকডাউন চলায় পথে নেই কোন যানবাহন, দিক-বিদিক ছুটেছিলেন তার স্বামী সাইফুল ইস’লাম। সে রাতে অ্যাম্বুলেন্স সহায়তা চেয়ে স্বামী সাইফুল ইস’লাম ফোন করেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় ও ফায়ার সার্ভিসে। কিন্তু শ্বা’সক’ষ্ট ও করোনার খবর শুনে সহযোগীতা দিতে অ’পারগতা প্রকাশ করেন তারা। পরে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতা’লেও ফোন করেন তিনি কিন্তু সেখান থেকেও পাওয়া যায়নি কোন সাড়া। পরে বেসরকারি দুটি হাসপাতা’লে অ্যাম্বুলেন্স সহায়তা চাইলে তারাও অ’পারগতা জানায়। প্রায় ৬ ঘণ্টা প্রা’ণপণ চেষ্টা চালিয়েও পাননি একটি অটোরিকশা।

About admin

Check Also

বোঝার উপায় নেই তিনি গ্রিলকাটা চোরদলের সর্দার!

বসেন সুসজ্জিত অফিসে। পরেন দামি দামি স্যুট, টাই। কথাবার্তা, চালচলন এবং আভিজাত্যের ছাপ দেখে বোঝার …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *