Breaking News

২৮ কেজি ওজনের সামুদ্রিক মাছ, দাম ৪ লাখ ৬৩ হাজার!

গভীর সমুদ্রে জেলের জালে ধরা পড়েছে ২৮ কেজি ওজনের একটি সামুদ্রিক ভোল মাছ। আজ শনিবার (২৪ জুলাই) দুপুর ১২টার দিকে পাথরঘাটা বিএফডিসি পাইকারি বাজারে ৪ লাখ ৬২ হাজার ৭০০ টাকায় বিক্রি করা হয় মাছটি। বিএফডিসি মৎস্য অবতরণকেন্দ্রের বাজারে মাছটি কেনেন খুলনার মৎস্য পাইকার মো. জুয়েল।

 

মাছুম কম্পানির মালিকানায় এফবি আলাউদ্দিন হাফিজ-৪ ট্রলারের মাঝি আবু জাফর বলেন, বৃহস্পতিবার (২০ জুলাই) গভীর সমুদ্রে জাল ফেলার সঙ্গে সঙ্গে জাল টানাটানি শুরু করি। জাল টানতে গিয়ে মনে হয়েছে বড় কোনো মাছ আটকে পড়েছে। আমরা জাল টানতেই বড় ভোল মাছটি পাই। দেরি না করে দ্রুত পাথরঘাটা ঘাটে আসি। শনিবার সকাল থেকেই মাছ প্রকাশ্য ডাক শুরু হলে দুপুর ১২টার দিকে ওই মাছটি ৬ লাখ ৬১ হাজার মণ দরে ২৮ কেজি মাছ ৪ লাখ ৬২ হাজার ৭০০ টাকায় বিক্রি করা হয়েছে। সে হিসেবে কেজিপ্রতি দাম পড়েছে ১৬ হাজার ৫২৫ টাকা।

 

বরগুনা জেলা মৎস্যজীবী ট্রলার মালিক সমিতির সভাপতি গোলাম মোস্তফা চৌধুরী বলেন, ভোল মাছ সচরাচর পাওয়া যায় না। মূলত এ মাছের বালিশের চাহিদা অনেক বেশি।

 

এফবি আলাউদ্দিন হাফিজ-৪ নামক ট্রলারের মালিক মো. মাসুম মিয়া কালের কণ্ঠকে বলেন, মাছের খবর পেয়ে খুলনা থেকে ক্রেতা আসে। লকডাউন না থাকলে মাছটির মূল্য আরো বেশি হতে পারত। প্রতিকেজি ২০ হাজার হতো লকডাউন না থাকলে। সাধারণত এই মাছের পেটের মধ্যে বায়ু ধারণের জন্য এক প্রকার থলে (এয়ার ব্লাডার) থাকে যা বালিশ নামে পরিচিত। এই বালিশ-ই মাছের মূল্য বাড়িয়ে দেয়। এগুলো বিদেশে রপ্তানি করা হয় বলে তিনি জানান।

About admin

Check Also

‘আখ উৎপাদন এবং মাড়াইয়ে আধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহার করতে হবে’

কৃষিমন্ত্রী ড. মো. আব্দুর রাজ্জাক বলেছেন, দেশে আখ উৎপাদন এবং মাড়াই বা চিনিকল-দুই জায়গাতেই আধুনিক …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *